Maintance

রোজ ম্যাকগোয়েনের আইডি ব্লক : টুইটারের ব্যাখ্যা

প্রকাশঃ ১:১৮ অপরাহ্ন, অক্টোবর ১৪, ২০১৭ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ২:১৯ অপরাহ্ন, অক্টোবর ১৪, ২০১৭

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : মার্কিন চলচ্চিত্র প্রযোজক হার্ভে উইনস্টেইনের বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ আনার পর রোজ ম্যাকগোয়েনের টুইটার অ্যাকাউন্টটি ব্লক হয়ে যায়। গত বৃহস্পতিবার এক টুইটার পোস্টে তিনি দাবি করেছিলেন, উইনস্টেইন তাকে ধর্ষণ করেছিল।

শুধু তিনিই নন হার্ভে উইনস্টেইনের বিরুদ্ধে হলিউডের শীর্ষ কয়েকজন অভিনেত্রীও যৌন নির্যাতনের অভিযোগ এনেছেন। কিন্তু তাদের মধ্যে শুধু রোজ ম্যাকগোয়েনের টুইটার অ্যাকাউন্টই কেনো ব্লক করা হলো তা নিয়ে চলছিলো ব্যাপক জল্পনা কল্পনা।

তার অ্যাকাউন্ট ব্লক করা নিয়ে টুইটারের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে। ব্যবহারকারীদের অনেকেই অনির্দিষ্টকালের জন্য টুইটার বর্জনের করার হুমকি দেন।

 

twitter-blocks-techshohor

ধারণা করা হচ্ছিল, হলিউডের ক্ষমতাশালী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে মুখ খোলায় রোজকে অ্যাকাউন্ট হারাতে হয়েছে। বিশেষ করে বেন অ্যাক্লেফকে গালি দেওয়ার পরই তাকে ব্লক করে দেয় টুইটার।

তবে টুইটার কর্তৃপক্ষ সকল পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে জানিয়েছে, রোজ ম্যাকগোয়েনের একটি টুইটে ব্যক্তিগত ফোন নম্বর দেওয়া হয়েছিলো। যা টুইটারের নীতিমালার সঙ্গে সাংঘর্ষিক।

ফলে তার অ্যাকাউন্টটি সাময়িকভাবে লক করা হয়েছিলো। ফোন নম্বর সম্বলিত ওই টুইটার মুছে ফেলার পর তার অ্যাকাউন্টটি আনলক করা হয়েছে।

একইসঙ্গে তারা আরও জানায়, ক্ষমতার দাপটের বিরুদ্ধে যারা সোচ্চার টুইটার তাদের মত প্রকাশের মাধ্যম হতে পেরে গর্ব বোধ করে।

এর আগে সর্বপ্রথম টুইটার বর্জনের ডাক দেন গুগলের সাবেক কর্মী ও সফটওয়্যার প্রকৌশলী কেলি এলিস।হয়রানির শিকার হওয়া নারীদেরকে সমর্থন না করায় তিনি ‘উইমেন বয়কট টুইটার’ হ্যাশট্যাগের প্রচলন শুরু করেন।

‘উইমেন বয়কট টুইটার’ হ্যাশট্যাগটির প্রতি সমর্থন জানিয়ে যারা টুইটার বর্জনের ডাক দেন তাদের মধ্যে আছেন বিখ্যাত অনেক তারকাও ছিলেন।

ইন্ডিপেন্ডেন্ট অবলম্বনে আনিকা জীনাত

*

*

Related posts/