Maintance

৫০ কোটি ডলার বিনিয়োগের অগ্রাধিকারে তথ্যপ্রযুক্তি খাত

প্রকাশঃ ৪:২৯ অপরাহ্ন, জুন ১৪, ২০১৭ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৯:৪৪ অপরাহ্ন, জুন ১৫, ২০১৭

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : আগামী দুই বছরে তথ্যপ্রযুক্তি খাতসহ বিভিন্ন স্টার্টআপে ৫০০ মিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করতে চান ভেঞ্চার ক্যাপিটালিস্টরা।

ভেঞ্চার ক্যাপিটাল (ভিসি)  অ্যান্ড প্রাইভেট ইক্যুয়েটি অ্যাসোসিয়েসন অব বাংলাদেশ (ভিসিপিইএবি)-এর সভাপতি শামীম আহসান এই বিনিয়োগ লক্ষ্যের কথা জানান। তবে খাতটিতে করারোপ এই লক্ষ্য অর্জনে অন্তরায় হতে পারে বলে বলেন তিনি।

যুক্তরাষ্ট্রের সিলিকন ভ্যালির শীর্ষস্থানীয় ভেঞ্চার ক্যাপিটাল ফেনক্স ভেঞ্চারের এই জেনারেল পার্টনার বলেন, ভেঞ্চার ক্যাপিটাল অর্থায়ন খুবই ঝুঁকিপূর্ণ। নতুন আর্থিকখাত হওয়ায় বিনিয়োগকারীদের মধ্যে অনেক সংশয় আছে। তাই এই শিল্প পরিণত হওয়া পর্যন্ত কর্পোরেট কর অব্যাহতি দরকার।

ভেঞ্চার ক্যাপিটাল এর বিনিয়োগ করা অর্থ ফেরত পেতে কমপক্ষে ৭ হতে ৮ বছর সময় লাগে। এ সময় তাদের টিকে থাকা খুব দুষ্কর। সুতরাং এখানে কমপক্ষে ১০ বছরের জন্যে কর মওকুফ সুবিধা দেয়া উচিত বলে মনে করেন তিনি।

চলতি বাজেটে অল্টারনেটিভ ইনভেস্টমেন্ট ফান্ডকে কর অব্যাহতির আওতায় আনাকে স্বাগত জানিয়ে শামীম বলেন, ফান্ড ম্যানেজাররা বা ভেঞ্চার ক্যাপিটালিস্টরা কোনো কর অব্যাহতি পাননি। আবার এই ফান্ডের আয় যখন বন্টিত হবে তখন তা করযোগ্য হিসেবে রাখা হয়েছে।

দেশে ফেনক্স ২০০ মিলিয়ন ডলারের বিনিয়োগ তহবিল গঠনের ঘোষণা দিয়েছে । ইতোমধ্যে কোম্পানিটি দেশের তথ্যপ্রযুক্তি খাতে বেশ বিনিয়োগও করেছে।  প্রিয় ডটকম, বাগডুম, আজকেল ডিল, সহজ ডটকম ও হ্যান্ডিমামাতে বড় অংকের অর্থ বিনিয়োগ করা হয়েছে বলে জানান এই ভেঞ্চার ক্যাপিটালিস্ট।

২০১৫ সালে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের ২০১৫ সালে অল্টারনেটিভ ইনভেস্টমেন্ট বিধি পাসের পর দেশে বিভিন্ন ভেঞ্চার ক্যাপিটাল ও প্রাইভেট ইকুইটি কোম্পানি প্রতিষ্ঠিত হচ্ছে। দেশে সক্রিয় থাকা কয়েকটি কোম্পানিসহ দেশের ভেঞ্চার ক্যাপিটাল ও প্রাইভেট ইকুইটি কোম্পানি মিলে ২০১৬ সালে ভিসিপিইএবি প্রতিষ্ঠা করে।

সংগঠনটির বর্তমান সদস্য হচ্ছে, ফেনক্স ভেঞ্চার ক্যাপিটাল, বিডি ভেঞ্চার লিমিটেড, মসলিন ক্যাপিটাল লিমিটেড, ভিআইপিবি অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট লি, বাংলাদেশ ভেঞ্চার ক্যাপিটাল লিমিটেড, লংকা বাংলা অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট কোম্পানি লিমিটেড, এথেনা ভেঞ্চার এবং ইকুইটি লিমিটেড।

সম্প্রতি ভিসিপিইএবি-এর সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনটির মহাসচিব শওকত হোসেন বলেন, স্টার্ট আপরা ব্যাংক বা আর্থিক প্রতিষ্ঠান, কোথাও থেকে আর্থিক সহায়তা পায় না। পৃথিবীব্যাপী ভেঞ্চার ক্যাপিটাল কোম্পানিরাই তাদের অর্থের যোগান দিয়ে থাকে। তাই বাংলাদেশে স্টার্ট আপ বা উদ্ভাবনী উদ্যোগের বিকাশের স্বার্থে ভেঞ্চার ক্যাপিটালের বিকাশ প্রয়োজন।

বিডি ভেঞ্চারের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শওকত হোসেন জানান তাঁর প্রতিষ্ঠান ডক্টরোলা, এসো শিখি, ব্রেইন স্টেশন, সাসটেইবল পাওয়ারসহ কয়েকটি উদ্যোগে বিনিয়োগ করেছে। এখানেও বেশিরভাগ উদ্যোগ তথ্যপ্রযুক্তির।

ওই সংবাদ সম্মেলনে ভিসিপিইএবির কোষাধ্যক্ষ ও সংগঠনটির প্রধান নির্বাহী সহিদুল ইসলাম, পরিচালক এবং মাসলিন ক্যাপিটালের সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক ওয়ালি-উল- মারূফ মতিনসহ পরিচালনা পর্ষদের অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

আল-আমীন দেওয়ান

*

*

Related posts/