Maintance

বাংলাদেশে ‘পেপ্যাল সেবা’ চালু

প্রকাশঃ ৯:০০ অপরাহ্ন, মে ২৩, ২০১৭ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৫:৪৩ অপরাহ্ন, মে ২৯, ২০১৭

আল-আমীন দেওয়ান, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দেশে পরীক্ষামূলকভাবে পেপ্যালের সেবা(জুম) চালু করেছে সোনালী ব্যাংক।

ব্যাংকটির সবগুলো শাখায় সেবাটি দেয়ার জন্য বৃহস্পতিবার একটি পরিপত্র জারি করা হয়েছে। এতে  শুরুতে বৈদেশিক রেমিট্যান্স আহরণ ও বিতরণ কার্যক্রম চালুর কথা বলা হয়।

তবে ফ্রিল্যান্সিং বা আউটসোর্সিংয়ের অর্থ লেনদেনের সুবিধা এখনই মিলছে না।

ব্যাংকটি ইতোমধ্যেই ইলেক্ট্রনিক পেমেন্ট প্লাটফর্ম (ইপিপি) নামে একটি সফটওয়্যার তৈরি করেছে। এটি পুরোপুরি চালু হলে পেপ্যাল ও বাংলাদেশে মধ্যস্থতাকারী কোম্পানি ‘টোয়োন্টিফোর মি’ এর সঙ্গে আইটি ডেভেলমেন্ট সম্পন্নের পর ফ্রিল্যান্সাররা তাদের লেনদেন করতে পারবেন।

চলতি বছরের শেষ নাগাদ এই প্রক্রিয়াটি শেষ হতে পারে।

paypal-bangladesh.-techshohor

দেশে পেপ্যাল চালু নিয়ে দীর্ঘ জল্পনা কল্পনার শেষ নেই। ২০১৬ সালের মাঝামাঝি হতে এখন পর্যন্ত  ‘পেপ্যাল আসছে’, ‘বাংলাদেশের ব্যাংকের সঙ্গে চুক্তি’, ‘নীতিনির্ধারণী পর্যায়ে ঘোষণা’ ‘পাঁচটি ব্যাংককে বাংলাদেশ ব্যাংকের চুক্তির অনুমতি’ ইত্যাদি খরব নিয়ে আলোড়ন-আলোচনা আশাই থেকেছে।

তবে পেপ্যাল নিয়ে এসবের বাস্তব ফলাফল হচ্ছে -পেপ্যালের জুম মাধ্যমে দেশে এর সেবা চালু হওয়া।  আর এর অনুমতিই দিয়েছিল বাংলাদেশ ব্যাংক।

সোনালী ব্যাংকও সম্প্রতি যে চুক্তি করেছে তার বিবরণে বলা হয়েছে, ‘বিশ্বের স্বনামধন্য ও বৃহত্তম রেমিট্যান্স সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান পেপ্যাল ইনকরপোরেশন, ইউএসএ (জুম কর্পোরেশন ইউএসএ) এর সাথে ড্রয়িং ব্যবস্থার আওতায় প্রাপক/উপকারভোগীকে সোনালী ব্যাংক লিমিটেডের সকল শাখায় এ/সি (অ্যাকাউন্ট) ট্রান্সফার পদ্ধতিতে বৈদেশিক রেমিট্যান্স গ্রহণের সুবিধা প্রদানের লক্ষ্যে এ ব্যাংকের সঙ্গে চুক্তি সম্পাদিত হয়েছে।’

এসব বিষয়ে নিশ্চিত তথ্য-প্রমাণ টেকশহরডটকমের কাছে রয়েছে। এছাড়া সোনালী ব্যাংকের ফরেন রেমিট্যান্স ম্যানেজমেন্ট ডিভিশনের একাধিক সূত্র বিষয়গুলো নিশ্চিত করেছেন।

2

ব্যাংকটি এ সেবার জন্য ঢাকার দিলকুশার ওয়েজ আনার্স কর্পোরেট শাখাকে নিয়ন্ত্রণকারী শাখা করেছে। এখানে পেপ্যাল (জুম) নিয়ে গ্রাহক সেবার দিতে সহায়ক ইউনিট হিসেবে দুই কর্মকর্তাকে মনোনয়ন করা হয়েছে।

এর মধ্যে ফরেন রেমিট্যান্স ডিভিশনের অ্যাসিস্ট্যান্ট জেনারেল ম্যানেজার দেবশ্রী মিত্র টেকশহরডটকমকে জানান, সোনালী ব্যাংকই প্রথম পেপ্যাল (জুম) সেবা চালু করল। পরীক্ষামূলক সেবা সবগুলো শাখায় চালু হয়েছে। শুরুতে রেমিট্যান্স আহরণ ও বিতরণ। আর অদূর ভবিষ্যতে আউটসোর্সিং অর্থ লেনদেনের সেবাও পাওয়া যাবে এতে।

সোনালী ব্যাংক প্রধান কার্যালয়ের ফরেন রেমিট্যান্স ম্যানেজমেন্ট ডিভিশন হতে বৃহস্পতিবার দেশের সব জায়গায় সব ধরনের সকল শাখায় সেবাটি চালু করতে পাঠানো পরিপত্রে বলা হয়, ‘নিজেদের উদ্ভাবিত ইলেক্ট্রনিক পেমেন্ট প্লাটফর্ম (ইপিপি) এর আওতায় ডিরেক্ট ক্রেডিট সার্ভিসের মাধ্যমে বৈদেশিক রেমিট্যান্স আহরণ ও বিতরণ কার্যক্রম সম্পন্ন করতে এক নতুন অধ্যায়ের শুরু হয়েছে।’

‘ব্যাংকের সকল শাখায় পেপ্যাল ইনকরপোরেশন ইউএসএ (জুম কর্পোরেশন ইউএসএ) এর মাধ্যমে রেমিট্যান্সআহরণ ও বিতরণ কার্যক্রম ১৮ মে ২০১৭ তারিখ হতে প্রাথমিক পরীক্ষামূলক কার্যক্রম এর লাইভ অপারেশন (পাইলট অপারেশন) শুরু হবে। অদূর ভবিষ্যতে আউটসোর্সিংয়ের অর্থ জুম-এ পেপ্যাল সার্ভিসের মাধ্যমে সোনালী ব্যাংকের সকল শাখায় পরিশোধ করা যাবে।’

শুরুতে দেশে পেপ্যাল ইনকরপোরেশন ইউএসএ (জুম কর্পোরেশন ইউএসএ) এর কী সেবা কীভাবে পাওয়া যাবে :

এক. রেমিট্যান্স আহরণের জন্য সোনালী ব্যাংকের যেকোনো শাখায় গ্রাহক বা সুবিধাভোগীর অবশ্যই একটি সঞ্চয়ী বা চলতি হিসাব থাকতে হবে।

দুই. রেমিট্যান্স কেবলমাত্র অ্যাকাউন্ট ট্রান্সফার পদ্ধতিতে আহরণ ও বিতরণ করা যাবে। রেমিট্যান্সের অর্থ চেক বা ডেবিট কার্ডের মাধ্যমে গ্রাহক ও সুবিধাভোগী পাবেন।

তিন. কেওয়াইসি নীতিমালা অনুসরণ করে সুস্থ, স্বাভাবিক বাংলাদেশী গ্রাহক, সুবিধাভোগী এই রেমিট্যান্স সুবিধা পাবেন।

চার. বিশ্বের যেকোনো দেশ হতে রেমিট্যান্স আহরণ করা যাবে।

পাঁচ. কোর ব্যাংকিং পদ্ধতিতে রেমিট্যান্স সরাসরি গ্রাহক বা সুবিধাভোগীর অ্যাকাউন্টে জমা হবে।

1

চলতি বছরের মার্চে সোনালী ব্যাংক,  অগ্রণী, রূপালী ব্যাংকের সঙ্গে সোশ্যাল ইসলামী এবং ডাচ-বাংলা ব্যাংককে এ সেবার জন্য অনুমতি দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক।

যে মাধ্যমে পেপ্যালের সেবা সেবা চালু হল যে জুম পেপ্যালের অধিগ্রহণ করা একটি কোম্পানি। এক সঙ্গে হওয়ার আগে এটি আমেরিকাভিত্তিক অনলাইন রেমিট্যান্স কোম্পানি হিসেবে সুপরিচিত ছিল।

তবে উদ্যোগটির অন্যতম উদ্দেশ্য রেমিট্যান্স আহরণ এবং আউটসোর্সিংয়ের অর্থ সহজে দেশে আনা।

পেপ্যাল জুম সেবা চালু নিয়ে চলতি বছরের মার্চ-এপ্রিলে  যুক্তরাষ্ট্রে জুমের সঙ্গে বৈঠকে তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক তাদেরকে বাংলাদেশে কার্যক্রম দ্রুত শুরুর আহ্বান জানান।  পেপ্যাল-জুম কর্তৃপক্ষ শিগগিরই এ কার্যক্রম শুরুর কথা জানিয়েছিল।

আরও পড়ুন: 

*

*

Related posts/