Maintance

বেড়েছে রাউটার, হার্ডড্রাইভ ও এসএসডির দাম

প্রকাশঃ ৫:৪৮ অপরাহ্ন, মে ১১, ২০১৭ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৫:৪৮ অপরাহ্ন, মে ১১, ২০১৭

তুসিন আহমেদ, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দেশে কম্পিউটার বাজারে বিভিন্ন প্রযুক্তি পণ্যের দাম বৃদ্ধি পেয়েছে। বাজার ঘুরে দেখা যায় রাউটার, এসএসডি, পোর্টেবল হার্ডড্রাইভ, র‍্যাম, মেমোরি কার্ড ও পেনড্রাইভের মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে।

সেই সাথে গত মাসের তুলনায় বিক্রিও কিছুটা কমেছে এসব প্রযুক্তি পণ্যের।  দেশের সবচেয়ে বড় কম্পিউটার বাজার আগারগাঁওয়ের বিসিএস কম্পিউটার সিটি ঘুরে এমন চিত্র দেখা যায়।

ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের গুরুত্বপূর্ণ ডিভাইস রাউটার। বাজারে থাকা বিভিন্ন ব্র্যান্ডের রাউটারের মূল্য মডেলভেদে ১০০ থেকে ৩০০ টাকা পর্যন্ত বৃদ্ধি পেয়েছে।

এক হাজার থেকে দেড় হাজার টাকা পর্যন্ত বৃদ্ধি পেয়েছে এসএসডির মূল্য। বাজারে থাকা কোরশেয়ার ব্র্যান্ডের এসএসডির স্টক ফুরিয়ে গেছে। মেমোরি কার্ড ও পেনড্রাইভের মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে ৫০-১০০ টাকা।

idb-techshohor

মডেল অনুযায়ী র‍্যামের দাম বৃদ্ধি পেয়েছে এক হাজার টাকার বেশি। আগে চার জিবি ডিডিআরথ্রি র‍্যাম বিক্রি হতো দেড় হাজার টাকায় দাম বেড়ে তা বিক্রি হচ্ছে দুই হাজার ৫০০ টাকার মধ্যে।

৮ জিবি ডিডিআরথ্রি র‍্যাম ৫ হাজার ৩০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। চার জিবি ডিডিআরফোর র‍্যামের মূল্য ১২০০ টাকা বৃদ্ধি পেয়ে বিক্রি হচ্ছে ৩ হাজার ২০০ টাকায়। ৮ জিবির মূল্য ৫ হাজার ৩০০ টাকা।

নেটস্টার প্রাইভেট লিমিটেডের বিক্রিয় কর্মকর্তা সাঈদ আলম নাহিদ টেকশহরডটকমকে জানান, চলতি মাসে তুলনামূলকভাবে বিক্রি কম। ধারণা করেছিলাম মে মাসে বিক্রি বৃদ্ধি পাবে। কম্পিউটার যন্ত্রাংশের মূল্য বৃদ্ধি পেলেও ল্যাপটপ, মনিটর, ইন্টারনাল হার্ডড্রাইভে ইত্যাদির দাম কিন্তু বাড়েনি।

বনানী থেকে আসা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ফারজানা বলেন, ডেস্কটপ কম্পিউটার কিনতে এসেছিলাম তবে আমাদের নির্ধারিত বাজেট থেকে কিছুটা বেশি খরচ হয়েছে। কিছু যন্ত্রাংশের দাম হাজার খানেক করে বৃদ্ধি পেয়েছে।

বাজার ঘুরে দেখা যায়, ল্যাপটপ ও ডেস্কটপ কম্পিউটার বিক্রি ভালো হচ্ছে। অফিস বা ব্যক্তিগত ব্যবহারের কাজে ল্যাপটপ বেশি বিক্রি হচ্ছে। তবে যারা গেইম খেলতে পছন্দ করেন তারা ডেস্কটপে আগ্রহী।

গেইমারদের জন্য চার হাজার টাকা থেকে শুরু করে ৫৭ হাজার টাকা পর্যন্ত গ্রাফিক্স কার্ড বিক্রি হচ্ছে। চার হাজার টাকা থেকে শুরু করে ৪৮ হাজার টাকার মধ্যে মাদার বোর্ড রয়েছে বাজারে। এছাড়া মাউস, কিবোর্ড, স্পিকার, কেসিং ইত্যাদি বিক্রি হচ্ছে মডেল অনুযায়ী আগের মতো নির্ধারিত দামেই।

*

*

Related posts/