লিংকডইনের অজানা ১০ তথ্য

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : প্রতিষ্ঠান ও পেশাদারদের জন্য জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ সাইট ‘লিংকডইন’। বর্তমানের সবচেয়ে জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ সাইট ফেইসবুকের আগেই ২০০৩ সালে চালু হয় এই ওয়েবসাইটটি। সারা বিশ্বের কে কোথায় কি করছে, কি ব্যবসা করছে, এমনসব কর্মকান্ডের তথ্য শেয়ার করেন ব্যবহারকারীরা।

পছন্দসই পেশার খবরাখবর রয়েছে এখানে। পেশা অনুযায়ী সদস্য হওয়া যায় বিভিন্ন গ্রুপের। বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের তথ্যও রয়েছে এখানে। পেশাদারদের পাশাপাশি যারা চাকরি খুঁজছেন তাদের জন্যও উপযোগি এই ওয়েবসাইটটি।

Linkedin-TechShohor

শীর্ষস্থানীয় এই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটি সম্পর্কে মজার ও অজানা ১০ তথ্য জানাতেই এই প্রতিবেদন।

১. ২০০৩ সালের ৫ জুলাই লিংকডইন চালু হয়।

২. লিংকডইনের বর্তমানে প্রায় ২৪ কোটি ব্যবহারকারী রয়েছে।

৩. বর্তমানে বিশ্বের ২০০টির বেশি দেশে লিংকডইন ব্যবহার হচ্ছে।

৪. লিংকডইনে ৩০ লাখের অধিক বাণিজ্যিক ও ব্র্যান্ড পেইজ রয়েছে।

৫. এই সাইটটিতে ১৫ লাখের অধিক গ্রুপ রয়েছে। ব্যবহারকারীরা পছন্দের গ্রুপে যুক্ত হওয়ার মাধ্যমে বিভিন্ন বিষয় শেয়ার করতে পারেন।

৬. লিংকডইন ১০০ কোটির অধিক এনডোর্সমেন্ট (সুপারিশ, যা একজন ব্যবহারকারী অন্য ব্যবহাকারীর দক্ষতার উপর করে থাকেন।) পেয়েছে।

৭. ২০১১ সালের ১৯ মে লিংকডইন শেয়ার মার্কেটে আসে।

৮. বর্তমানে লিংকডইনের মোট কর্মকর্তা-কর্মচারীর সংখ্যা প্রায় ৩ হাজার ৭০০।

৯. লিংকডইনের ব্যবহারকারীরা প্রতিমাসে গড়ে ১৭ মিনিট সাইটটি ব্যবহার করেন।

১০. ২০১২ সালের ৩ মে ১১৯ মিলিয়ন ডলারের বিনিময়ে কনটেন্ট শেয়ারের সোশ্যাল প্লার্টফর্ম ‘স্লাইডশেয়ার’ কিনে নেয়।

উপরোক্ত বিষয়গুলো দেখলে বোঝা যায় বেশিরভাগ মাইলফলক ঘটেছে মে মাসে। তাই মে মাস লিংকডইনের জন্য শুভ মাস বলা চলে।

– বিভিন্ন তথ্যসূত্র অবলম্বনে তুহিন মাহমুদ

ট্যাগ

Related posts

*

*

Top