সফটওয়্যার ও আইটি শিল্পের রূপকল্প উদ্বোধন

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : আগামী পাঁচ বছরে ১ বিলিয়ন ডলার রপ্তানি, ১ মিলিয়ন পেশাদার আইটি জনশক্তি তৈরি, প্রতিবছর এক কোটি মানুষকে ইন্টারনেট ব্যবহারের আওতায় আনা এবং জিডিপিতে সফটওয়্যার ও আইটি খাত থেকে ১ শতাংশ অবদান রাখার লক্ষ্যে ‘ওয়ান বাংলাদেশ’ ক্যাম্পেইনের আয়োজন করেছে বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস)। রোববার সন্ধ্যায় রাজধানীর একটি হোটেলে বাংলাদেশের সফটওয়্যার ও আইটি শিল্পের এই রূপকল্পের উদ্বোধন করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত এমপি। বিশেষ অতিথি ছিলেন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম এমপি ও ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এমপি। সভাপতিত্ব করেন বেসিস সভাপতি শামীম আহসান। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বেসিসের মহাসচিব রাসেল টি আহমেদ।

One Bangladesh-basis-TechShohor

বেসিস সভাপতি শামীম আহসান বলেন, ‘আগামী পাঁচ বছরে আমরা ১ বিলিয়ন ডলার রপ্তানি, ১ মিলিয়ন পেশাদার আইটি জনশক্তি তৈরি, প্রতিবছর এক কোটি মানুষকে ইন্টারনেট ব্যবহারের আওতায় আনা এবং জিডিপিতে সফটওয়্যার ও আইটি খাত থেকে ১ শতাংশ অবদান রাখার লক্ষ্য নির্ধারন করেছি এবং বিস্তারিত সামগ্রিক কর্মপরিকল্পনা গ্রহণ করেছি।

সফটওয়্যার ও আইটি শিল্পের ‘ওয়ান বাংলাদেশ’ রূপকল্প অর্জনের মধ্য দিয়ে ২০২১ সালের ‘ডিজিটাল বাংলাদেশ’ রূপকল্প অর্জন সম্ভব হবে এবং আমাদের দেশের ১০ কোটি তরুণ-তরুণীরা কাজ করে দেশকে মধ্যম আয়ের দেশ নয়, উচ্চ আয়ের দেশে পরিণত করবে’।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, আমি আমার মেয়ের অনুপ্রেরণায় প্রযুক্তি ব্যবহার করি। আমি দেখছি তরুণরাই বাংলাদেশের তথ্য-প্রযুক্তিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। আজ এখানে যারা উপস্থিত আছেন তারাও সবাই তরুণ। বেসিসের স্বপ্নকে আমি সাধুবাদ জানাই।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী তার বক্তব্যে বলেন, বাংলাদেশ এখন তথ্যপ্রযুক্তিতে বিনিয়োগের সবচেয়ে শ্রেষ্ঠ জায়গায় পরিনত হয়েছে। বেসিস নিজেও বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশের তথ্য-প্রযুক্তিকে ব্র্যান্ডিং করে আসছে। বেসিস যদি আমাদের প্রযুক্তি পণ্যের উপযুক্ত মার্কেটিং করতে পারে তবে আমাদের বাজার আরও সমৃদ্ধ হবে।

বিশেষ অতিথি ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী তার বক্তব্যে বলেন, বর্তমান সরকার ডিজিটাল বাংলাদেশের লক্ষ্য নিয়ে তরুণ প্রজন্মকে স্বপ্ন দেখিয়েছে। আমরা বাংলাদেশকে বদলে দিতে চাই। আমি বিশ্বাস করি বেসিস বাংলাদেশের তথ্য প্রযুক্তির উন্নয়নে সামনের দিকে অবদান রাখবে। সরকার ও বেসিস একসাথে কাজ করলে দেশ আরও এগিয়ে যাবে। বাংলাদেশ নিজেই একসময় তথ্য-প্রযুক্তির মডেল হয়ে উঠবে। বেসিসের ভবিষ্যত যাত্রা শুভ হোক।

Related posts

*

*

Top