গনিত উৎসব শুরু শুক্রবার

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : আগামী শুক্রবার থেকে শুরু হচ্ছে দ্বাদশ গনিত উৎসব। এ আয়োজন চলবে আগামী ১৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। আয়োজক বাংলাদেশ গনিত অলিম্পিয়াড কমিটি। এবার মোট ২২টি আঞ্চলিক গনিত উৎসব অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ঠরা।

বাংলাদেশ গনিত অলিম্পিয়াডের সাধারণ সম্পাদক মুনির হাসান টেক শহরকে জানান, আগামী ১৭ জানুয়ারি থেকে ২২টি আঞ্চলিক গনিত উৎসব আয়োজিত হবে। এছাড়া ১৪ ও ১৫ ফেব্রুয়ারি জাতীয় গনিত উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। ইতিমধ্যে প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে।

Bangladesh Mathematical Olympiad-schedule-TechShohor

ডাচ-বাংলা ব্যাংক-প্রথম আলো গনিত উৎসবে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে শিক্ষার্থীরা নিবন্ধন করছে।  আগ্রহীরা নিজ এলাকার নির্ধারিত প্রথম আলো অফিস থেকে এ নিবন্ধন করতে পারছে। এ বিষয়ে উৎসবের সমন্বয়কারী বায়েজিদ ভুইয়া জুয়েল জানান, প্রতিবারের মতো এবারও বিভিন্ন স্কুলে দিনব্যাপি এই উৎসব আয়োজিত হবে। এতে পার্শ্ববর্তী অঞ্চলের শিক্ষার্থীরাসহ বিশিষ্ঠ ব্যক্তিরা উপস্থিত থাকবেন।

সকাল সাড়ে ৮টায় উৎসব শরু হবে। এতে শিক্ষার্থীদের নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের নির্ধারিত পোশাকে অনুষ্ঠানস্থলে আসতে হবে। পরীক্ষার জন্য প্রয়োজনীয় প্রবেশপত্র, কলম, পেন্সিল শিক্ষার্থীদের নিজেকেই আনতে হবে। তবে সঙ্গে মোবাইল ও ক্যালকুলেটর আনা যাবে না বলে জানান বায়েজিদ ভুইয়া জুয়েল।

উৎসবের প্রথম দিন (১৭ জানুয়ারি) একযোগে আটটি অঞ্চলে উৎসব শুরু হবে। এ অঞ্চলগুলো হচ্ছে, রংপুর (নীলফামারী, কুড়িগ্রাম, জয়পুরহাট, লালমনিরহাট ও রংপুর), ঝিনাইদহ (মাগুরা, মেহেরপুর, চুয়াডাঙ্গা, কুষ্টিয়া ও ঝিনাইদহ), যশোর (নড়াইল ও যশোর), ফরিদপুর (মাদারীপুর, শরীয়তপুর, রাজবাড়ী, ফরিদপুর ও গোপালগঞ্জ), ব্রাহ্মণবাড়িয়া (হবিগঞ্জ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া ও নরসিংদী), ময়মনসিংহ (কিশোরগঞ্জ, টাঙ্গাইল, জামালপুর, নেত্রকোনা, শেরপুর ও ময়মনসিংহ), ফেনী (লক্ষ্মীপুর, ফেনী ও নোয়াখালী) এবং রাঙামাটি (রাঙামাটি ও খাগড়াছড়ি)।

এর মধ্যে রংপুর জিলা স্কুল, ঝিনাইদহ ওয়াজির আলী মাধ্যমিক বিদ্যালয়, যশোর জিলা স্কুল, ফরিদপুর জিলা স্কুল, ব্রাহ্মণবাড়িয়া অন্নদা সরকারি উচ্চবিদ্যালয়, ময়মনসিংহ জিলা স্কুল, ফেনী সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয় ও রাঙামাটি লেকার্স পাবলিক স্কুল ও কলেজে উৎসব অনুষ্ঠিত হবে।

পরের শুক্রবার (২৪ জানুয়ারি) একযোগে আরও আটটি অঞ্চলে উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। এ অঞ্চলগুলো হচ্ছে, দিনাজপুর, বগুড়া (সিরাজগঞ্জ, গাইবান্ধা ও বগুড়া), বরিশাল (ঝালকাঠি, পিরোজপুর ও বরিশাল), সিলেট (সুনামগঞ্জ, মৌলভীবাজার ও সিলেট), কুমিল্লা (কুমিল্লা ও চাঁদপুর), চট্টগ্রাম (চট্টগ্রাম ও বান্দরবান), খুলনা (সাতক্ষীরা, বাগেরহাট ও খুলনা) এবং নারায়ণগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ ও মুন্সিগঞ্জ)।

এর মধ্যে দিনাজপুর জিলা স্কুল, বিয়াম মডেল স্কুল ও কলেজ, বগুড়া, বরিশাল মডেল স্কুল ও কলেজ, ব্লু-বার্ড স্কুল ও কলেজ, সিলেট, কুমিল্লা জিলা স্কুল, চট্টগ্রাম কলেজিয়েট স্কুল, সেন্ট জোসেফ উচ্চবিদ্যালয়, খুলনা ও নারায়ণগঞ্জ হাইস্কুল ও কলেজে উৎসব অনুষ্ঠিত হবে।

২৫ জানুয়ারি (শনিবার) একযোগে পাঁচটি অঞ্চলে উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। এ অঞ্চলগুলো হচ্ছে, ঠাকুরগাঁও (পঞ্চগড় ও ঠাকুরগাঁও), রাজশাহী (পাবনা, নওগাঁ, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, নাটোর ও রাজশাহী), পটুয়াখালী (বরগুনা ও পটুয়াখালী) এবং ভোলা ও কক্সবাজার। এর মধ্যে ইকো পাঠশালা ও কলেজ, ঠাকুরগাঁও, রাজশাহী শিক্ষা বোর্ড মডেল স্কুল ও কলেজ, পটুয়াখালী সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়, টাউন কমিটি মাধ্যমিক বিদ্যালয় (বাংলা স্কুল), ভোলা ও কক্সবাজার সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে উৎসব অনুষ্ঠিত হবে।

১লা ফেব্রুয়ারি (শনিবার) ঢাকা (ঢাকা মহানগর, গাজীপুর ও মানিকগঞ্জ) অঞ্চলের উৎসব ঢাকা রেসিডেনসিয়াল মডেল কলেজে অনুষ্ঠিত হবে।

১৪ ও ১৫ ফেব্রুয়ারির জাতীয় গনিত উৎসবের অনুষ্ঠানস্থল পরবর্তীতে জানানো হবে বলে জানান আয়োজকরা।

Related posts

*

*

Top