ক্লাউড গেইমিং সুবিধা আনছে সনি

শাহরিয়ার হৃদয়, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : জাপানের শীর্ষ প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান ও গেইম কোম্পানি সনি ক্লাউড গেইমিং সার্ভিস চালুর ঘোষণা দিয়েছে। এর ফলে প্লে স্টেশন না থাকলেও সেখানকার অনেক গেইম ক্লাউডে নিবন্ধন করে সরাসরি খেলা যাবে।

সনির সর্বশেষ স্মার্ট টিভিগুলোতে এভাবে প্লে স্টেশনের গেইম খেলা যাবে। শিগগিরই বিভিন্ন থার্ড পার্টি প্ল্যাটফর্মে এ সুবিধা আসবে বলে সনি জানিয়েছে। তবে শুরুর দিকে কেবল যুক্তরাষ্ট্রের গেইমাররা এটি ব্যবহার করতে পারবেন। কয়েক মাসের মধ্যে বিশ্বব্যাপী উন্মুক্ত করা হবে।

play station 4 vs xboxone_techshohor

যুক্তরাষ্ট্রের লাস ভেগাসে কনজ্যুমার ইলেকট্রনিক শোতে (সিইএস) স্টেশন নাও নামে এ সার্ভিসের ঘোষণা দিয়েছে সনি।

সনি বেশ জোরেশোরে এ উদ্যোগ শুরু করলেও স্মার্টফোন ও ট্যাব প্ল্যাটফর্মে এ সুবিধাটি কিভাবে আসবে, তা এখনও জানা যায়নি।

২০১২ সালে ৩৮ কোটি ডলার দিয়ে গাইকেই নামে একটি গেইম কোম্পানি কেনে সনি। গাইকেই এর ডেভেলপ করা প্রযুক্তির ভিত্তিতে সনির ক্লাউড গেইমিং প্রস্তুত করা হচ্ছে। এমনকি এটি দিয়ে প্লেস্টেশন ৪-এ ও পিএস ৩ এর গেইম খেলা যাবে।

সিইএস-এ পরীক্ষামূলকভাবে অনেক গেইমার এটি ব্যবহার করতে দেওয়া হয়েছে। তারা জানিয়েছেন, এটি খুবই চমৎকার পদ্ধতি হলেও যেহেতু ইন্টারনেটকে ভিত্তি করে খেলা হচ্ছে, তাই গ্রাফিক্স উচ্চমানের আসছে না। অনেক হাই গ্রাফিক্সের গেইম মাঝপথে আটকে যাচ্ছে। তবে সনি এ সমস্যা সমাধানে কাজ করছে বলে জানিয়েছে।

সনি ছাড়াও আরও অনেক কোম্পানি এ ধরনের প্রকল্প নিয়ে কাজ করছে। এদের মধ্যে অনলাইভ নামে একটি প্রতিষ্ঠান রয়েছে, যারা ২০১০ সাল থেকে ব্রিটেনে ক্লাউড গেইমিং সেবা দিয়ে আসছে।

সিইএসে সনি আরওজানায়, গত ২৮ ডিসেম্বর পর্যন্ত তারা প্রায় ৪২ লাখ প্লেস্টেশন ৪ কনসোল বিক্রি করেছে। এর আগে মাইক্রোসফট জানিয়েছিল, এক্স বক্সওয়ান এ পর্যন্ত বিক্রি হয়েছে প্রায় ৩০ লাখ ইউনিট। কনসোল গেইমিংয়ের বাজার দখলে গত নভেম্বরের শেষ দিকে ডিভাইস দুটি বাজারে এনেছিল তারা।

– বিবিসি অবলম্বনে 

Related posts

*

*

Top