নির্বাচনের পরেও অস্থিতিশীল প্রযুক্তি বাজার

তুসিন আহমেদ, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : দেশের রাজনৈতিক অস্থিরতায় প্রযুক্তি বাজার এখনো অস্থিতিশীল। হতাশায় ভুগছেন প্রযুক্তি পণ্য বিক্রেতা প্রতিষ্ঠানগুলো। নতুন বছর হতাশ নিয়ে শুরু হলেও বিক্রেতাদের মনে একটা সুপ্ত আশা ছিল যে, নির্বাচনের পর প্রযুক্তি বজার কিছুটা হলেও স্থিতিশীল হবে। কিন্তু পাঁচ তারিখ নির্বাচন শেষ হাওয়ার পরও শেষ হয়নি হরতাল ও অবরোধ। আর এই হরতাল-অবরোধের কারণে ক্ষতির শিকার প্রযুক্তি বাজার। একদিকে নেই চাহিদানুযায়ী প্রযুক্তি পণ্যের আমদানি, অপরদিকে পর্যাপ্ত ক্রেতাও নেই বাজারে।

যেখানে থাকে প্রযুক্তি প্রেমীদের ভিড়, থাকে বিক্রেতাদের ব্যস্ততার সঙ্গে পণ্য বিক্রি, চলে পণ্যের দাম নিয়ে টানাটানি, সেসব কিছুই নেই প্রযুক্তি বাজারগুলোতে। বুধবার আগারগাঁওয়ে দেশের সবচেয়ে বড় প্রযুক্তি পণ্যের বাজার বিসিএস কম্পিউটার সিটি ঘুরে দেখা যায় এই চিত্র।

BCS Computer City 2-TechShohor

বাজারে পোর্টেবল হার্ডড্রাইভ সরবরাহ এখনও কম। তবে ইন্টারন্যাল হার্ডড্রাইভ সংকট আগে থাকলেও বর্তমানে সেটি নেই।

রায়ান্স কম্পিউটার লিমিটেডের এক বিক্রেতা জানান, “বর্তমানে তাদের কাছে পোর্টেবল হার্ডড্রাইভ নেই। শুধু ইন্টারন্যাল হার্ডড্রাইভ আছে। কারণ চাহিদা থাকলেও সেটি বাজারে আসছে না। হরতাল-অবরোধের কারণে পরিবহন ব্যবস্থা অপ্রতুল থাকায় এই সংকট তৈরি হয়েছে”।

বর্তমানে বাজারে ব্র্যান্ড অনুযায়ী ৫০০ গিগাবাইট হার্ডড্রাইভ ৪ হাজার এক’শ টাকা থেকে ৪ হাজার ৭’শ টাকা পর্যন্ত বিক্রি হচ্ছে। আর এক টেরাবাইট হার্ডড্রাইভ ব্র্যান্ড অনুযায়ী ৫ হাজার ৩’শ টাকা থেকে ৬ হাজার এক’শ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

যারা ল্যাপটপ কিনবেন বলে ভাবছেন, তারা এখনই ল্যাপটপ কিনতে পারেন। ল্যাপটপের দাম আগের তুলনায় এক থেকে তিন হাজার টাকা কমে বিক্রি হচ্ছে। বিক্রেতারা বলছেন, অবরোধের কারণে বিক্রি কম হাওয়ায় দাম কমিয়ে দেওয়া হয়েছে।

BCS Computer City-TechShohor

ফুজিৎসু ব্র্যান্ডের এলএইচ৫৩২ সিরিজের ল্যাপটপ কনফিগারেশন ভেদে বর্তমানে ৩০ হাজার টাকা থেকে ৬৪ হাজার টাকায় পাওয়া যাচ্ছে। একই সিরিজের কোর আই সেভেন প্রসেসর এবং ২ জিবি গ্রাফিক্স কার্ড সম্বলিত ল্যাপটপের দাম ৬৪ হাজার টাকা। ফুজিৎসু এলএইচ৫৩২ সিরিজের ল্যাপটপ কিনলে থাকছে মডেম, হার্ডড্রাইভ, ফ্রিজ, প্রিন্টার ইত্যাদি উপহার হিসেবে জেতার সুযোগ থাকছে।

বাজারে নতুন কোনো পণ্য এসেছে কিনা এমন প্রশ্নে সব বিক্রেতাদের মুখে হতাশার ছায়া দেখা যাচ্ছে। এক বিক্রেতা এই বিষয়ে বলেন, “এই পরিস্থিতে আমাদের কাছে ক্রেতাই নেই আর নতুন পণ্য !!!’

অন্যান্য প্রযুক্তি পণ্য যেমন কিবোর্ড, পেনড্রাইভ, মনিটর, প্রিন্টার, রাউটার, গ্রাফিক্স কার্ড, এসডি কার্ড, ডাটা ক্যাবল, র‍্যাম ইত্যাদির দাম গত সপ্তাহের মতোই রয়েছে। এলজির ১৫ ইঞ্চির এলইডি মনিটর বিক্রি হচ্ছে ৬ হাজার এক’শ টাকায়। আর স্যামসাংয়ের ১৮ ইঞ্চির মনিটর বিক্রি হচ্ছে সাত হাজার ৫’শ টাকায়। এছাড়া অন্যান্য ব্র্যান্ডের মনিটরের দাম খুব বেশি পরিবর্তন হয়নি। আগের তুলনায় এক’শ টাকা থেকে ৩’শ টাকা পর্যন্ত কমেছে বলে জানান বিক্রেতারা।

Related posts

*

*

Top