জোরেশোরে ডিজিটাল প্রচারণায় নামল আওয়ামী লীগ

তুহিন মাহমুদ, টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : আসন্ন নির্বাচনকে সামনে রেখে ডিজিটাল প্রচারণায় নেমেছে আওয়ামী লীগ। শুরুটা অনেক আগে থেকে হলেও এখন বেশ জোরেশোরে চলছে এ প্রচারণা। দলীয় ওয়েবসাইট, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এবং টেলিভিশনে ভিডিও বিজ্ঞাপন প্রচারের মাধ্যমে প্রচারণা চালানো হচ্ছে।

বর্তমান ক্ষমতাসীন দলটি সম্প্রতি নির্বাচনকে সামনে রেখে নতুন করে একটি ওয়েবসাইট, ইউটিউব চ্যানেল ও ফেইসবুক পেইজ চালু করেছে।

আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে বুধবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, অনলাইন যোগাযোগ নেটওয়ার্কের মাধ্যমে আরও বিপুলসংখ্যক মানুষের কাছে দলের বার্তা পৌঁছানো, দলীয় প্রচারণাকে আরও নতুন রূপ দিতে এবং দলের বিভিন্ন কর্মকাণ্ড মানুষকে সহজ উপায়ে জানানোর পাশাপাশি মতামত যাচাই করতে এ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

নতুন ওয়েবসাইট (www.albd.org), ইউটিউব চ্যানেল (http:/www.youtube.com/myalbd) এবং ফেইসবুক পেইজগুলোতে (www.facebook.com/awamileague.1949) সব ধরনের খবর, ছবি ও ভিডিও প্রচার করা হচ্ছে।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ইতোমধ্যে আওয়ামী লীগের নামে আরও অনেকগুলো পেইজ চালু রয়েছে। সেসব পেইজ থেকে বিভিন্ন রকমের বিভ্রান্তিমূলক তথ্যও প্রচার করা হয়েছে।

এতে বলা হয়, সকলের অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে , এসব পেইজগুলোর সাথে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কোনো সম্পৃক্ততা নেই এবং পেইজগুলোর কোনপ্রকার কার্যক্রমের দায়ভার দলটি বহন করবে না।

আওয়ামী লীগের অফিসিয়াল ফেইসবুক পেইজটি চালু  করা হয় ৩০ আগস্ট । পেইজটির এই মুহূর্তে লাইক সংখ্যা প্রায় ৭৭ হাজার।

Bangladesh awami league FB-TechShohor

পেইজটিতে গিয়ে দেখা গেছে, দিনের প্রায় প্রতি ঘন্টাতে নির্বাচনী প্রচারণা চালানো হচ্ছে। বিশেষ করে ১৮ দলীয় জোটের নানা সহিংসতার কার্যক্রম তুলে ধরা হচ্ছে। বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় আসা ছবি ও লেখা প্রকাশ করা হচ্ছে। এগুলোতে ব্যবহারকারীরা মন্তব্য দিচ্ছেন ও শেয়ার করছেন। এর বাইরেও আওয়ামী লীগের বেশ কয়েকটি পেইজ রয়েছে। তবে সেগুলো অফিসিয়াল বলা হচ্ছে না।

ভিডিও শেয়ারিং সাইট ইউটিউবের চ্যানেলটিতে গিয়ে দেখা গেছে, চ্যানেলটি গত ৩০ সেপ্টেম্বর চালু করা হয়। বর্তমানে চ্যানেলটির সাবস্কাইবারের সংখ্যা প্রায় সাড়ে ৭’শ। ভিডিও শেয়ার করা হয়েছে ৩৮টি।

Bangladesh awami league youtube-TechShohor

এ ছাড়া চ্যানেলটি ভিজিট হয়েছে প্রায় ৪০ হাজার বার। তবে এখন পর্যন্ত কেউ চ্যানেল ডিসকাশনে অংশ নেয়নি (মন্তব্য করেনি)।

এ ছাড়া নতুন সাজে সেজেছে আওয়ামী লীগের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট। সেখানে বাংলা ও ইংরেজি দুইটি সংস্করণ রয়েছে। সরকারের উন্নয়নের নানা ফিরিস্তি তুলে ধরা হয়েছে ওয়েবসাইটিতে। রয়েছে বিএনপি-জামায়াতের ২০০১-২০০৬ সালের ‘সন্ত্রাস নৈরাজ্য ও অপশাসনের কাল’ শিরোনামে একটি লিংক। তবে সেটি দেখতে সমস্যা হচ্ছে। এ ছাড়া দলের প্রচারণা কার্যক্রম ও নির্বাচন সম্পর্কিত তথ্য রয়েছে।

Bangladesh awami league-TechShohor

ওয়েবসাইটটিতে নির্বাচনী প্রচারের অংশ হিসেবে পোস্টার, ছবি, উন্নয়নের গ্রাফিক্স চিত্রের পাশাপাশি ভিডিও ও অডিও ক্লিপ তৈরি করা হয়েছে। এগুলোতে সরকারের উন্নয়ন ও বিএনপি জামায়োতের দুর্নীতি, ব্যর্থতা ও নৈরাজ্য তুলে ধরা হচ্ছে। প্রচারিত হচ্ছে বিভিন্ন ডক্যুমেন্টারি বা তথ্য ও প্রামাণ্যচিত্র।

অনলাইনের পাশাপাশি এই ভিডিওগুলো বিজ্ঞাপণ আকারে টেলিভিশনে প্রচার হচ্ছে। বিজ্ঞাপনগুলো তৈরি করেছে বিজ্ঞাপন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান গ্রে।

এসব প্রচারের যাবতীয় কাজ হচ্ছে মূলত আওয়ামী লীগের সেন্টার ফর রিসার্স অ্যান্ড ইনফরমেশন থেকে। অনলাইনের বাইরে বিলবোর্ড, টিভি বিজ্ঞাপন, রেডিও বিজ্ঞাপন নির্মাণের কাজগুলোও এখান থেকে তদারকি করা হচ্ছে।

Related posts

*

*

Top