HP Banner
Maintance

রাজধানীতে ই-কমার্স মেলা শুরু

প্রকাশঃ সেপ্টেম্বর ২৫, ২০১৪, ০৬:২০ - আপডেটঃ সেপ্টেম্বর ২৫, ২০১৪, ০৬:২০

ফেয়ার-টেকশহর
Symphony 2018

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর :  ‘ক্লিকের ছোঁয়ায় বাণিজ্য’ শীর্ষক স্লোগানকে সামনে রেখে রাজধানীর বেগম সুফিয়া কামাল পাবলিক লাইব্রেরি প্রাঙ্গণে শুরু হয়েছে তিন দিনের ই-কমার্স মেলা।

বিদ্যুৎ, জ্বালানি এবং খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বৃহস্পতিবার মেলার উদ্বোধন করেন। কমপিউটার জগৎ আয়োজিত এ মেলা শনিবার চলবে। মেলা খোলা থাকবে সকাল ১০টা থেকে রাত ৮ পর্যন্ত চলবে।

সবার জন্য উন্মুক্ত এ মেলায় তথ্যপ্রযুক্তি খাতের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান তাদের পণ্য ও সেবা প্রদর্শন করবে। এ ছাড়া গেইমিং প্রতিযোগিতা ও সেমিনারের আয়োজন করা হয়েছে। উদ্বোধনী দিন বিকালে মেলায় জাতীয় মহিলার সংস্থার আয়োজনে তথ্যআপা প্রকল্প ও এর ওয়েবসাইট আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করা হয়।

ফেয়ার-টেকশহর

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে নসরুল হামিদ বলেন, বিশ্বকে হাতের নাগালে নিয়ে এসেছে কম্পিউটার। এটির ব্যবহারের মাধ্যমে তথ্যপ্রযুক্তি খাতে এগিয়ে যেতে হবে। দেশকে মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত করতে হলে এ খাতে উন্নয়নের বিকল্প নেই। তিনি আরও বলেন, ই-কমার্স নিয়ে যত বেশি এ ধরনের মেলা হবে তত বেশি এ খাতের প্রসার ঘটবে।

মেলার আহবায়ক আব্দুল ওয়াহেদ তমাল বলেন, মেলার আয়োজ কমপিউটার জগৎ প্রায় ২৪ বছর ধরে আইসিটি খাতের উন্নয়নে কাজ করছে। দেশে ই-কমার্সকে বেগবান করতে ভূমিকা রাখছে জনপ্রিয় এ সাময়িকী। বিভাগীয় শহরে ই-কমার্স নিয়ে বিভিন্ন সেমিনার, মেলা ও অন্যান্য কার্যক্রম চালানো হচ্ছে।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতির সাবেক সভাপতি মোস্তাফা জব্বার বলেন, সরকার ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে কাজ করছে। এ ক্ষেত্রে দেশকে ডিজিটাল করার প্রথম মাধ্যম হলো ই-কমার্স। তিনি বলেন, সামনের দিনগুলোতে ইন্টারনেট ছাড়া চাকরি অসম্ভব। এক দিন কমার্স বলতে ই-কমার্সকে বুঝাবে।

এ তথ্য প্রযুক্তিবিদ বলেন, ই-কমার্সের সফল বাস্তবায়নে চাই আইনের সহায়তা দরকার। এজন্য সরকারকে এগিয়ে আসার আহবান জানান তিনি।

এখানেই ডটকমের পরিচালক আরিল্ড বলেন, ই-কমার্স এ দেশে প্রথম দিকে তেমন কোন সাড়া ফেলতে না পারলেও গত দুই বছরে অনেক এগিয়েছে। বাংলাদেশের জন্য এ খাতের গুরুত্ব অপরিসীম উল্লেখ করে তিনি এ খাতের উন্নয়নে সস্তায় ইন্টারনেট সংযোগ দেওয়ার ব্যবস্থা করতে সরকারের প্রতি আহবান জানান।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন জাতীয় মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান মততাজ বেগম, আড়ংয়ের সিওও মোহাম্মদ আব্দুর রউফ, কমপিউটার জগতের প্রকাশক নাজমা কাদের

মেলায় বাংলাদেশ ব্যাংক, এসএসএল কমার্স, ব্যাংক এশিয়া, এখানেই ডটকম, তথ্যআপা, আড়ং, ই-সুফিয়ানা, সূর্যমুখী ডটকম, যেমনখুশী ডটকম, সোনার কুরিয়ার সার্ভিস লিঃ, দ্যা কোডেরো লিঃ, সেমিকন প্রাইভেট লিঃ, বাসবিডি ডটকম, সহজ ডটকম, মাইক্রোপার্টস ইউএসএ লিঃ, টি-জোন, অ্যাভিরা, আপনজোন, রেভারি কর্পোরেশন, ধ্রুবতারা, বিডিওএসএন, অধুনা, অনলাইন কেনাকাটা, অপ্সরা ডটকম, এটসেট্রা, নিজোল ক্রিয়েটিভ, বিজয় ডিজিটাল, শপিং২৪বিডি ডটকম, উৎসববিডি, ক্রাফটিক আর্ট, ইয়োরট্রিপমেট,নুফা এন্টারটেইনমেন্ট, ঢাকা পিক্সেল, মনিহারী ডটকম, নূরজাহান ডট অর্গ  এবং টেক ওয়ার্ল্ড অংশ নিচ্ছে।

তিন দিনব্যাপী এ ই-কমার্স মেলার তত্ত্বাবধানে রয়েছে বাংলাদেশ সরকারের সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ডিপার্টমেন্ট অব পাবলিক লাইব্রেরি। এ মেলার প্ল্যাটিনাম স্পন্সর হচ্ছে দেশের অন্যতম জনপ্রিয় ক্লাসিফায়েড ওয়েবসাইট এখানেই ডটকম এবং তথ্যআপা। টিম ইঞ্জিন এবং ওয়েব টিভি নেক্সট এ মেলার গোল্ড স্পন্সর এবং আড়ং সিলভার স্পন্সর।

মেলার পার্টনার হিসেবে রয়েছে দ্যা ডেইলি স্টার, জাতীয় মহিলা সংস্থা এবং গিগাবাইট। এছাড়াও সিকিউরিটি পার্টনার অ্যাভিরা, অ্যাডভার্টাইজমেন্ট পার্টনার গ্রীন অ্যান্ড রেড টেকনোলজিস, ইন্টারনেট পার্টনার ঢাকাকম লিমিটেড, টিভি পার্টনার একাত্তর টিভি, রেডিও পার্টনার ঢাকা এফএম, ওয়বে পার্টনার বাংলানিউজ২৪.কম, ব্লগ পার্টনার সামহোয়্যার ইন ব্লগ, কুয়িরার পার্টনার সোনার কুয়িরার, অনলাইন প্রমোশন পার্টনার ইনফিনিট আউটপুট, লজিস্টিক পার্টনার ধ্রুবতারা, নলেজ পার্টনার বাংলাদেশ ওপেন সোর্স নেটওয়ার্ক, অ্যাপস পার্টনার রেভারী কর্পোরেশন।

*

*

সর্বাধিক পঠিত