Maintance

'ফাইনাল ফ্যান্টাসি ১৫' পকেট এডিশনে সেরা গেইম

প্রকাশঃ ৮:৪৪ অপরাহ্ন, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০১৮ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ৬:৪৫ অপরাহ্ন, ফেব্রুয়ারি ১০, ২০১৮

টেক শহর কনটেন্ট কাউন্সিলর : যারা রোল-প্লেইং গেইম পছন্দ করেন, তারা ফাইনাল ফ্যান্টাসি সিরিজের একটি হলেও গেইম খেলেছেন।

তুমুল জনপ্রিয় এই গেইম সিরিজের সর্বশেষ সংস্করণ ‘ফাইনাল ফ্যান্টাসি এক্সভি’ বা ‘ফাইনাল ফ্যান্টাসি ১৫’ এর মোবাইল সংস্করণ উন্মোচন হয়েছে গত ৯ ফেব্রুয়ারি।

অন্যান্য গেইমের মোবাইল সংস্করণের সঙ্গে এটির তফাত, ফাইনাল ফ্যান্টাসি ১৫-এর মূল কাহিনীকে অল্পবিস্তর সংক্ষিপ্ত করে তার পকেট এডিশন তৈরি করা হয়েছে। তবে সেটি আলাদা কোনো গেইম নয়। ফলে যারা মূল গেইমটি খেলতে পারছেন না তারা এটি খেলে কাহিনীটি জানতে পারবেন।

শুরুতেই জেনে রাখা ভালো, গেইমটির প্রথম চ্যাপ্টারটিই শুধু বিনামূল্যে খেলা যাবে, পরেরগুলো ইন-অ্যাপ পারচেসের মাধ্যমে কেনা ছাড়া কাহিনী শেষ হবে না।

গেইমের শুরুতে দেখা যাবে, লুসিস রাজ্য ও নিফলাইম সাম্রাজ্যের মধ্যে চলমান যু্দ্ধের ইতি টানতে লুসিস এর রাজকুমার নকটিস নিফলাইমের সম্রাটের সঙ্গে সমঝোতা করতে তার ৩ বন্ধুকে নিয়ে রওনা হয়েছে। তখন পথে তাদের গাড়ি বিকল হয়ে গেলে তারা কাছের এক শহরে উপস্থিত হয়। সেখান থেকেই তাদের অ্যাডভেঞ্চারের শুরু।

শহরের চারপাশের হিংস্র প্রাণী দমন, আটকে পড়া মানুষদের উদ্ধার, ম্যাপ অনুযায়ী গুপ্তধন খুঁজে বের করা, এমনকি দানবাকৃতির পাখি ঘুমিয়ে থাকার সময় তার বাসা থেকে রত্ন ছিনিয়ে আনারও মিশন রয়েছে।

রাজকুমার হলেও সঙ্গে অল্প পরিমাণ টাকা থাকায় নকটিস ও তার বন্ধুদেরকে শহরের বাসিন্দাদের নানা ভাবে সাহায্য করে অর্থ যোগাড় করতে হয়। এসকল কাজ অবশ্য গেইমটিতে সাইড-কোয়েস্ট আকারে দেয়া হয়েছে, সেগুলো খেলা বা না খেলা সম্পূর্ণ গেইমারের সিদ্ধান্ত। চারটি চরিত্রের প্রত্যেককে নতুন অস্ত্রে সজ্জিত করতে বেশ ভাল পরিমাণ অর্থের প্রয়োজন, তাই সাইড কোয়েস্ট খেলাই উত্তম।

Symphony 2018

পকেট এডিশন মূলত ফাইনাল ফ্যান্টাসি ১৫-এর মত ওপেন ওয়ার্ল্ড না হলেও, এক স্থান থেকে অন্য স্থানে যাওয়ার সময় গাড়ি অল্পবিস্তর নিয়ন্ত্রণ করা যাবে। গেইমটি খেলতে হবে আইসোমেট্রিক ভিউ থেকে, ট্যাপ করে একখান থেকে অন্যখানে যাওয়া যাবে। গেইমটির অন্য ভালো দিক, প্রতিটি ডায়ালগে ভয়েস রয়েছে, শুধু সাবটাইটেল নয়। গ্রাফিক্স অনেকটা কার্টুনের মতো, খুব বাস্তবসম্মত নয় তবে দৃষ্টিনন্দন।

গেইমের কমব্যাট অন্যান্য রিয়েলটাইম স্ট্র্যাটেজি গেইমের মত, শত্রুর ওপর ট্যাপ করে অ্যাটাক ও ডিফেন্ড করতে হবে। বসের ক্ষেত্রে ৪ জন মিলেই হামলা করা যাবে।

গেইমটির গ্রাফিক্স কমানো বাড়ানোর ব্যবস্থা রয়েছে, তবে নির্মাতা স্কয়ার ইনিক্সের দাবি, অন্তত ২ গিগাবাইট র‍্যামের নিচে গেইমটি খেলা যাবে না। ফোনেও অন্তত দেড় গিগাবাইট জায়গা প্রয়োজন।

ফাইনাল ফ্যান্টাসি ১৫ পকেট এডিশনের গেইমপ্লে, কাহিনী ও ডায়ালগের গভীরতা তাকে মোবাইলের অন্যতম সেরা রোল প্লেইং গেইমে পরিণত করেছে। তবে পুরো গেইমটি খেলতে হলে ২০ ডলার পর্যন্ত ইন-অ্যাপ পারচেস গুণতে হতে পারে। ফলে অনেকেই গেইমটি হয়ত প্রথম চ্যাপ্টারের পর আর খেলতে চাইবেন না। মাত্রই রিলিজ হওয়ার ফলে গেইমটিতে বেশ কিছু বাগ রয়েছে।

সব মিলিয়ে ফাইনাল ফ্যান্টাসি ১৫ পকেট এডিশন এ সময়ের মোবাইল রোল প্লেইং গেইমের মধ্যে বলা যায় সেরা।

অ্যান্ড্রয়েড ফোন থেকে এই ঠিকানায় এবং আইওএস থেকে গেইমটি ডাউনলোড করে খেলা যাবে।

এস এম তাহমিদ

*

*

Related posts/