Maintance

কেনাবেচার উৎসবে শেষ হলো স্মার্টফোন মেলা

প্রকাশঃ ৯:০০ অপরাহ্ন, জানুয়ারি ১৩, ২০১৮ - সর্বশেষ সম্পাদনাঃ ১১:৩৫ পূর্বাহ্ন, জানুয়ারি ১৪, ২০১৮

টেকশহর কনটেন্ট কাউন্সিলর :  তিন দিনে রেকর্ড বিক্রির মধ্য দিয়ে পর্দা নামলো টেকশহরডটকম স্মার্টফোন ও ট্যাব মেলার। বিপুল দর্শক সমাগম, নতুন মডেলের স্মার্টফোন উন্মোচন,  প্রদর্শনী ও  বিক্রির মধ্য দিয়ে শনিবার শেষ হলো এ মেলা।

রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) বৃহস্পতিবার থেকে নবমবারের মতো তিন দিনের এ মেলার আয়োজন করে এক্সপো মেকার।

প্রথমদিন থেকেই মেলায় ভিড় করে প্রযুক্তিপ্রেমীরা।বিশেষ করে তরুণদের মেলায় আসার পরিমাণও ছিল বেশি। তবে বন্ধু-বান্ধব, আত্মীয়-স্বজন ও পরিবারের লোকদের নিয়েও অনেকেই মেলায় এসে কিনেছেন তাদের পছন্দের স্মার্টফোন ও ট্যাবলেট।

মেলার প্রথমদিন থেকেই বিভিন্ন প্রযুক্তি নির্মাতা আর বিপণন প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের সর্বশেষ প্রযুক্তি পণ্য প্রদর্শন ও বিক্রি করেছে। ভিন্ন সব অফার, ছাড় আর উপহারে ক্রেতারা যেমন খুশি তাদের পছন্দের পণ্য কিনে। তেমনি বিক্রেতারাও খুশি তাদের পণ্য বিক্রি করতে পেরে।

অংশগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানগুলো জানান, মেলায় প্রত্যাশার চেয়ে অনেক বেশি পরিমাণ পণ্য বিক্রি হয়েছে। অন্যবারের তুলনায় এবার ক্রেতাদের সাড়া বেশি। মধ্যম পর্যায়ের স্মার্টফোন ও ট্যাবের চাহিদা বেশি ছিল। তবে ক্রেতারা শুধু যে দামের বিষয়টি বিবেচনা করছেন এমন নয়, দাম কম-বেশি হলেও কোনো পণ্য পছন্দ হলেই লুফে নিয়েছেন তারা।

এবারের মেলায় স্যামসাং, টেকনো, শাওমি, উই, হুয়াওয়ে, এলজি, অপ্পো, সিম্ফনি ছাড়াও অংশ নিয়েছিল নকিয়া, মাইক্রোম্যাক্স, লেনোভো, আসুস, উইনম্যাক্সসহ বেশ কয়েকটি মোবাইল ব্র্যান্ড।

মেলায় স্মার্টফোনের আনুষঙ্গিক গ্যাজেট বিক্রি করেছে এডাটা, কিকশা ডটকম, আজকের ডিলসহ আরো কয়েকটি প্রতিষ্ঠান।

টেকনো মোবাইলের পরিবেশক ট্রানশান হোল্ডিংসের চিফ অপারেটিং অফিসার শ্যামল কুমার সাহা টেকশহর ডটকমকে বলেন, টেকনো এবার মেলায় প্রথম অংশ নিয়েছে। প্রথমবারের তারা সাড়া পেয়েছেন খুবই ভালো। মেলার মাধ্যমে সরাসরি তারা ক্রেতাদের সঙ্গে মেশার এবং তাদের ফিডব্যাক পেয়েছেন। আর এর থেকেই তারা ভবিষ্যতে আরো ভালো করবেন বলে জানান।

তিনি বলেন, আমরা চাই দেশে টেকনো মোবাইলকে তরুণদের অন্যতম পছন্দের ব্র্যান্ড হিসেবে পরিচিত করতে। এই মেলা তার জন্য অবশ্যই বড় কিছু। মেলায় কেমিও নামের যে স্মার্টফোন উন্মোচন করেছি আমরা তার ক্রেতাই ছিল বেশি।

উই মোবাইলের প্রধান নির্বাহী মুনতাসির হোসেন বলেন, উই শুধু মোবাইল ব্র্যান্ড নয়, এটা একটা সল্যুশনও। মেলার মাধ্যমেই আমরা সরাসরি গ্রাহকদের কাছে যাওয়ার সুযোগ পাই। এবার মেলায় একটি কিনলে একটি ফ্রি অফারে আমরা খুবই ভালো সাড়া পেয়েছি।

শাওমি বাংলাদেশের ব্র্যান্ড ম‍্যানেজার তারিক রায়হান মিঠু টেকশহর ডটকমকে বলেন, মেলায় দর্শনার্থীদের জন‍্য শাওমি অফারে পণ‍্য বিক্রি করেছিল। ফলে গ্রাহকের পছন্দের পণ‍্যটি ছাড়ে পেয়ে কিনে নেয়। তিন দিনের মেলায় শাওমি স্মার্টফোনের বিক্রি বেশ ভালো হয়েছে। গ্রাহকদের চাহিদা ছিল মিডরেঞ্জের ফোনগুলো। ডুয়েল ক‍্যামেরার শাওমি এম১ ফোনটির বিক্রি বেশি হয়েছে। মেলার বিক্রিতে তারা সন্তুষ্ট বলে জানান।

এবারের মেলার টাইটেল স্পন্সর দেশের আইসিটি ও টেলিকম বিষয়ক শীর্ষস্থানীয় নিউজ পোর্টাল টেকশহরডটকম

প্ল্যাটিনাম স্পন্সর হিসেবে রয়েছে স্যামসাং ও টেকনো মোবাইল। গোল্ড স্পন্সর হিসেবে রয়েছে শাওমি ও উই।সিলভার স্পন্সর হিসেবে রয়েছে হুয়াওয়ে, এলজি স্মার্ট ফোন, অপ্পো ও সিম্ফনি। পার্টনার হিসেবে রয়েছে এডুমেকার।মেলার টিকিট বুথ স্পন্সর কিকসা ডটকম।

এবারও মেলা উপলক্ষে স্মার্টফোন ও ট্যাব এক্সপোর অফিসিয়াল ফেইসবুক পেইজে ‘টেকনো মোবাইল’-এর সৌজন্যে স্মার্ট বাজ কুইজ কনটেস্ট-এর আয়োজন করা হয়েছে। এতে বিজয়ীরা আকর্ষণীয় পুরস্কার পাবেন।প্রদর্শনীর সব আপডেট ও খবর মেলার অফিসিয়াল ফেইসবুক পেইজ এবং দেশের আইসিটি ও টেলিকম বিষয়ক শীর্ষস্থানীয় নিউজ পোর্টাল টেকশহর ডটকমে (techshohor.com) পাওয়া যাবে।

মেলা শেষ দিনেও রাত আটটা পর্যন্ত সকলের জন্য উন্মুক্ত থাকছে। মেলায় প্রবেশ মূল্য ২০ টাকা। টিকিট থেকে প্রাপ্ত অর্থ ক্যান্সার রোগীর চিকিৎসায় দান করা হবে।

 

*

*

Related posts/