আত্মকর্মসংস্থান তৈরিতে ভূমিকা রাখতে চায় আর্টিকেল লিখি

অনলাইনে ফরমায়েশি লেখালেখির সেবা প্রদানের ব্যতিক্রমী প্রতিষ্ঠান আর্টিকেল লিখির পেছনের মানুষটি একেবারে নবীন উদ্যোক্তা। বিদেশে এমন প্রতিষ্ঠান অনেক হলেও দেশে ধারনাটি একেবারেই নতুন। চ্যালেঞ্জিং এ উদ্যোগের কথা জানাচ্ছেন তুহিন মাহমুদ

আমাদের দেশে ফ্রিল্যান্সার হিসাবে অনেকে গ্রাহকদের জন্য বিভিন্ন ধরনের প্রবন্ধ (আর্টিকেল) এবং ওয়েবসাইটের কনটেন্ট লিখে দিলেও এমন প্রতিষ্ঠান নেই বললেই চলে। তবুও নতুন কিছু করার চ্যালেঞ্জ থেকে ঝুঁকি নিলেন এখনও শিক্ষা জীবনের গন্ডি না পেরোনো এক তরুন হাসানুজ্জামান রুবেল।

ফরিদপুরের ছেলে রুবেল এখনও পড়াশোনা করছেন স্ট্যামফোর্ড ইউনিভার্সিটিতে কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ারিংয় নিয়ে। তবে এরই মধ্যে তার উদ্যোগ ‘আর্টিকেল লিখি’র কাজের প্রসার বাড়ছে। গুণগত মানের কারণে নতুন নতুন গ্রাহকও যোগ হচ্ছে। দেশের গন্ডি পেরিয়ে বিদেশি গ্রাহকদের চাহিদা অনুযায়ী প্রবন্ধ লেখার কাজ পাচ্ছেন নিয়মিত। তাইতো কাজের চাপ বাড়ায় প্রতিষ্ঠানের কর্মী সংখ্যাও বাড়ছে।

Hasanusjaman Rubel-article liki-TechShohor

আর্টিকেল লিখির মাধ্যমে রুবেল ও তার কর্মীরা দেশি বিদেশি গ্রাহকদের চাহিদানুযায়ী বিভিন্ন ওয়েবসাইটের কনটেন্ট, বাণিজ্যিক ও প্রমোশনাল কার্যক্রমের জন্য প্রবন্ধ, ব্লগের জন্য আর্টিকেল, ফিচার, বিভিন্ন গবেষণামূলক বইয়ের জন্য প্রবন্ধ লিখে দেন তারা। রুবেল জানান, এর বাইরে গ্রাহকদের চাহিদা অনুযায়ী বিভিন্ন ধরনের প্রবন্ধ লেখেন তারা। আর্টিকেল/ওয়েব কনটেন্ট সেবার পাশাপাশি রুবেল একই সঙ্গে ইন্টারনেট মার্কেটিং সেবা দিচ্ছেন।

এ ধরনের উদ্যোগের পেছনের কথা বলতে গিয়ে রুবেল টেকশহরডটকমকে বলেন, বিজ্ঞান বিভাগে পড়াশোনা করলেও অনেক আগে থেকে ব্যবসা করার পোকা ছিল মাথায়। তাই বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির পর মনের মধ্যে উঁকিঝুঁকি দেওয়া এ ইচ্ছাকে বাস্তবে রূপ দেওয়ার চেষ্টা শরু করলেন। প্রথম দিকে নানান ঝক্কি থাকলেও এখন দেশ-বিদেশি গ্রাহকদের সাড়া পাওয়ায় ভালোই এগোচ্ছে আর্টিকেল লিখি।

পরিকল্পনার কথা
২০১২ সালের মাঝামাঝি সময়ে দক্ষতা উন্নয়ন বিষয়ক প্রশিক্ষণ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ডেভসটিম ইনস্টিটিউট থেকে ব্লগিং, সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন ও ইন্টারনেট মার্কেটিংয়ের বিভিন্ন প্রশিক্ষণ নেন রুবেল। এরপর শুরু করেন নিজের কিছু ব্লগ সাইট। ব্লগে লেখালেখি করতে গিয়ে দেখলেন বাংলাদেশে তেমন আর্টিকেল সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান নেই। কাজটা যখন লেখালেখির, তাই আর দেরি করলেন না। শুরু করলেন নাম খোঁজা। অনেক ভেবেচিন্তে এবং ইন্টারনেট মার্কেটিংয়ে তার গুরু অনলাইন মার্কেটিং স্ট্র্যাটেজিস্ট ও ডেভসটিমের প্রধান নির্বাহী তাহের চৌধুরী সুমনের সঙ্গে পরামর্শ করে নাম রাখলেন ‘আর্টিকেল লিখি’।

শুরুটা যেভাবে
নাম নির্ধারণ হলেও কিছুদিন কাজ এগোয়নি। তবে ২০১২ সালের শেষ দিন চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেন আর্টিকেল লিখিকে নিয়ে পথে নামার। ওই রাতেই ডোমেইন নিবন্ধন করে ফেলেন। একই সঙ্গে ওয়েবসাইট ও ফেইসবুকে একটি পেইজ খোলেন। প্রথম দিকে ফ্রিল্যান্সার দু’জন রাইটার নিয়োগ করলেন এবং তিনিসহ তিন জন কাজে নামলেন। অফিস না থাকায় ভার্চুয়ালি গ্রাহকদের কনটেন্ট ও প্রবন্ধ (আর্টিকেল) লিখে দেওয়ার কাজ শুরু করলেন তারা।

Article Likhi-TechShohor

নেওয়া হলো অফিস
বেশ কিছুদিন পরই ভালো সাড়া মেলে। বেশ কিছু গ্রাহক যোগাযোগ করতে শুরু করলেন। তারা বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনায় বসতে চাইতেন। তাদের সঙ্গে আলোচনা এবং ব্যাবসায়িক সুবিধার জন্য গত বছর ১ জুলাই আনুষ্ঠানিকভাবে পান্থপথে চালু করেন অফিস। পরে তা স্থানান্তরিত করা হয় জিগাতলায়। অবশ্য একই অফিস থেকে ইন্টারনেট মার্কেটিং এবং ওয়েব ডেভেলপমেন্ট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান ‘হোয়াইট থিওরি’ এর পরিচালনাও করেন রুবেল।

বিদেশি গ্রাহকও পাচ্ছে আর্টিকেল লিখি
সেবার মানের কারণে ক্রমে বাড়তে থাকল কাজ। একটা সময় শুধু দেশে সীমাবদ্ধ থাকল না তা। বিদেশি গ্রাহকও জুটে গেল। দলে যুক্ত করেন আরও দু’জন রাইটার। একই সঙ্গে নিজের কয়েকটি ব্লগও চালিয়ে যেতে থাকেন। গ্রাহকদের চাহিদানুযায়ী দরকার হলো আরও কিছু উচ্চমানের রাইটারের। এরপর ‘চাকরি খুঁজব না চাকরি দেব’ গ্রুপের উদ্যোক্তা মুনির হাসানের সঙ্গে পরামর্শ করে আরও দু’জনকে নিয়োগ দিলেন। সব মিলে এখন আর্টিকেল লিখিতে ৭ জন কাজ করছেন।

প্রচারণা
প্রাথমিকভাবে শুধু ফেইসবুক ফ্যান পেইজ, ওয়েবসাইট এবং পরিচিতজনদের মাধ্যমে প্রচারণা চালান রুবেল। পরে বিভিন্ন অনলাইন এবং সংবাদপত্রে বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে প্রচার চালাতে থাকেন। এ ছাড়া ফেইসবুকের বিভিন্ন গ্রুপে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।

Article likhi website feature-TechShohor

কর্মসংস্থান তৈরি করতে চায় আর্টিকেল লিখি
আগামীতে আরও ভালো আর্টিকেল সেবা দিতে চান রুবেল। তিনি জানান, বিশেষ করে দেশের তরুণ সমাজে যারা ইংরেজিতে ভালো দক্ষ তাদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে একজন ভালো আর্টিকেল রাইটারে পরিণত করতে চান। যাতে এসব তরুনদের কর্মসংস্থান নিয়ে ভাবতে না হয়। আগামীতে এ খাতে আরও লোকের কর্মসংস্থানের সুযোগ তৈরি হবে বলে মনে করেন তিনি। একই সঙ্গে দেশ-বিদেশে আর্টিকেল লিখির কার্যক্রমও বাড়বে এমনইটাই প্রত্যাশা রুবেলের।

নতুনদের জন্য পরামর্শ
এ সেবা কার্যক্রমে যারা নতুন করে যুক্ত হতে চান তাদেরকে আর্টিকেলের গুণগত মানের দিকে নজর দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন রুবেল। গ্রাহকদের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখার কথাও বলেছেন তিনি। তার মতে, যে ধরণের আর্টিকেল সরবরাহ করা হবে সেগুলোর বিষয়ে আপডেটেড থাকতে হবে। আগ্রহ নেই এমন কাজ শুরু করা ঠিক নয়।

যোগাযোগের ঠিকানা
আর্টিকেল লিখি
৩৮/৪, জিগাতলা (পুরাতন কাঁচা বাজার)
লেভেল-৫, ঢাকা-১২০৯
মোবাইল : +৮৮০১৭১৫৩৬৮৬৮৮৪
ইমেইল : info@articlelikhi.com
ওয়েবসাইট : http//:www.articlelikhi.com
ফেইসবুক ফ্যান পেইজ : http//:www.facebook.com/articlelikhi

Related posts

*

*

Top